ঢাকা: রাত ১২:১৫ মিনিট, বুধবার, ২৭শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১১ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ ,হেমন্তকাল, ২১শে রবিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি
জাতীয়

“ঈদ-উল-আযহার” শুভেচ্ছা জানিয়ে মহামারীকালে সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহ্বান : রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

এএনবি নিউজএজেন্সি ডটকম

“ঈদ-উল-আযহার” শুভেচ্ছা জানিয়ে মহামারীকালে সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহ্বান জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

ঈদ আনন্দের বার্তা নিয়ে এলেও বুধবার ঈদুল আযহার দিন সেই খুশি আসবে না সবার ঘরে। অন্তত মঙ্গলবারও যে ২০০ জন কোভিড-১৯ রোগী মারা গেছে, তাদের পরিবারে। যারা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে লড়ছে, তাদের পরিবারে। “কোরবানি তো দূরে থাক, ঈদ নিয়ে আমরা চিন্তাও করতেছি না,” বলছিলেন আরশাদুল হক। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক এই শিক্ষার্থী তার কোভিড-১৯ আক্রান্ত বাবাকে নিয়ে রয়েছেন সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে।

এভাবে গত কিছু দিন ধরে প্রতিদিন দুই শতাধিক মৃত্যু আর ১১ হাজারের বেশি আক্রান্ত হওয়ায় ঈদের খুশিতে যেন স্বাস্থ্যবিধি না হারায়, সেই আহ্বানই আসছে বারবার। যদিও তা উপেক্ষিত দেখা গেছে ঈদের বাড়ি ফেরা এবং কোরবানির হাটের ভিড়ে। ফলে বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ উপেক্ষা করে মহামারীর দ্বিতীয় ঢেউয়ে বিপর্যস্ত অবস্থার মধ্যে বিধি-নিষেধ থেকে মুক্তির সুযোগ যেভাবে মানুষ নিয়েছে, তাতে ঈদের পরে সংক্রমণ পরিস্থিতি কী দাঁড়ায়, তা নিয়ে শঙ্কা থেকেই যায়।

পরিস্থিতি কতটা ভয়ঙ্কর হতে পারে- সে ইঙ্গিত দিয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল নাজমুল হক বলেন, “আমার ভয় লাগে যে, ইন্দোনেশিয়া-ভারত এ পর্যায়ে না আমরা না পৌঁছাই। অগাস্ট-সেপ্টেম্বর মাসে গিয়ে প্রতিদিন ৮০০ থেকে ১০০০ মৃত্যু হবে না- এটা বলা যাচ্ছে না। আমরা এটা বলতেও ভয় পাচ্ছি। কিন্তু মনে হচ্ছে এটাই হবে।”

সরকার অবশ্য ঈদের দুদিন পর থেকে আবার কঠোর লকডাউনের ঘোষণা দিয়ে রেখেছে। আর স্বাস্থ্যবিধি মানার মধ্য দিয়ে সেই লড়াইয়ে জেতার আশাবাদ প্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

মহামারীর মধ্যে আগের তিনটি ঈদের মতো এই কোরবানির ঈদেও জাতীয় ঈদগাহে মুসল্লিদের পা পড়বে না। ঈদের নামাজ পড়তে হবে মসজিদে। কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়ার কিংবা দিনাজপুরের গোর-ই শহীদ ময়দানেও এবার ঈদের জামাত হচ্ছে না।

গতবারের মতো এবারও বিনোদন কেন্দ্রগুলোতে থাকবে তালা। আবার বৃষ্টির আভাসও রয়েছে, ফলে কোরবানির পশুর মাংস ব্যবস্থাপনা নিয়ে ঝঞ্ঝাটের শঙ্কা থেকে যাচ্ছে।

Hur Agency

এমন আরো সংবাদ

Back to top button