ঢাকা: দুপুর ২:৩৬ মিনিট, শনিবার, ১৭ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ ,গ্রীষ্মকাল, ৫ই রমজান, ১৪৪২ হিজরি
জাতীয়বিশেষ প্রতিবেদন

শেখ হাসিনাকে সরকার গঠনের আমন্ত্রণ রাষ্ট্রপতির এবং সোমবার নতুন মন্ত্রিসভার শপথ

সোমবার নতুন মন্ত্রিসভার শপথ

এএনবি নিউজএজেন্সি ডটকমনিজস্ব প্রতিবেদক, এএনবি নিউজএজেন্সি ডটকম: শেখ হাসিনার নেতৃত্বে নতুন মন্ত্রিসভা শপথ নেবে আগামী সোমবার।

এবার সরকার গঠন করে টানা তৃতীয় মেয়াদে প্রধানমন্ত্রী হওয়ার অনন্য নজির স্থাপন করতে যাচ্ছেন বঙ্গবন্ধুকন্যা।

সংসদে সংখ্যাগরিষ্ঠ সংসদ সদস্যের আস্থাভাজন হিসেবে তিনি সরকার গঠনের আনুষ্ঠানিক আমন্ত্রণও পেয়েছেন রাষ্ট্রপতির কাছ থেকে।

একাদশ সংসদ নির্বাচনে বিপুল বিজয়ের পর বৃহস্পতিবার সকালে সাংসদ হিসেবে শপথ ও সংসদ নেতা নির্বাচিত হয়ে কার্যত সরকার গঠনের দাবি নিয়ে বিকালে রাষ্ট্রপ্রধান মো. আবদুল হামিদের সঙ্গে দেখা করতে যান বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বিকাল ৪টায় বঙ্গভবনে পৌঁছালে তাকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ। এরপর বৈঠক করেন তারা।

রাষ্ট্রপতির প্রেস সচিব মো. জয়নাল আবেদীন জানান, একাদশ জাতীয় সংসদে সংখ্যাগরিষ্ঠ সদস্যদের আস্থাভাজন হিসেবে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনাকে সরকার গঠনের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন রাষ্ট্রপ্রধান।

এর ঘণ্টাখানেক পরই তিনি বলেন, “সোমবার বিকাল সাড়ে ৩টায় বঙ্গভবনে নতুন মন্ত্রিসভার শপথ অনুষ্ঠান হবে।”

সংবিধান অনুযায়ী প্রধানমন্ত্রী নিয়োগ দেওয়ার এখতিয়ার রাষ্ট্রপ্রধানের। নতুন সরকারের মন্ত্রিসভার শপথ তিনিই পড়াবেন। আর শপথ অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করবে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

মন্ত্রিপরিষত সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম বলেন, ৭ জানুয়ারি বিকাল সাড়ে ৩টায় শপথ অনুষ্ঠানের প্রস্তুতি নিচ্ছেন তারা।

শেখ হাসিনার বিদায়ী মেয়াদের সরকারে মন্ত্রীর সংখ্যা অর্ধশতের আশপাশেই ঘোরাফেরা করছিল। নতুন সরকারের সদস্য সংখ্যা কত হবে, সে বিষয়ে কোনো আভাস পাওয়া যায়নি।

২০০৯ সালে সরকার গঠনের সময় নতুনদের প্রাধান্য দিয়েছিলেন শেখ হাসিনা, পরের মেয়াদে তিনি মন্ত্রিসভায় ফিরিয়ে এনেছিলেন প্রবীণ নেতাদের অনেককে।

এবার কী করবেন- সে বিষয়ে জানতে চাইলে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের একদিন আগেও সাংবাদিকদের বলেন, এটা পুরোপুরি শেখ হাসিনার এখতিয়ার।

বৃহস্পতিবার বঙ্গভবনে শেখ হাসিনা যাওয়ার সময় কাদেরও তার সঙ্গে ছিলেন। প্রবীণ দুই নেতা আমির হোসেন আমু ও তোফায়েল আহমেদকেও সঙ্গে নেন তিনি।

গত ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জয়ের পর রাষ্ট্রপতির সঙ্গে শেখ হাসিনার এটাই প্রথম সাক্ষাৎ। এর আগে গত ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সর্বশেষ বঙ্গভবনে গিয়েছিলেন তিনি।

এবার নির্বাচনে অভাবনীয় ফল পেয়েছে আওয়ামী লীগ। ৩০০ আসনের সংসদে আওয়ামী লীগের আসন বেড়ে ২৫৭টিতে দাঁড়িয়েছে। জোটগতভাবে তারা পেয়েছে ২৮৮ আসন। অন্যদিকে তাদের প্রধান প্রতিপক্ষ বিএনপি ও তাদের জোটসঙ্গীরা সব মিলিয়ে মাত্র সাতটি আসন পেয়েছে।

বৃহস্পতিবার সকালে জাতীয় সংসদে নবনির্বাচিত সংসদ সদস্যদের শপথের পর আওয়ামী লীগের সংসদীয় দলের বৈঠকে শেখ হাসিনাকে বরাবরের মতোই সংসদ নেতা নির্বাচিত করা হয়।

Hur Agency

এমন আরো সংবাদ

Back to top button